Sunday, January 15, 2017

ইচ্ছা বা চাওয়া

তারিখ: ০৬ জানুয়ারি, ২০১৭
চেয়েছি আকাশ অনন্ত যাতে চোখ জুড়োবে
যা দেখে মহান মহতের সাধনার পরশ পাওয়া যাবে।
ছুঁতে চেয়েছি পাহাড় বা সুউচ্চ শিখরকে
যার গা ছুঁয়ে চলে গেছে অনাবিল বিশুদ্ধ বাতাস
যে ছিল অনড় অটল।
স্পর্শে স্পর্শে নিজেকে স্নিগ্ধ, সৌম্য বা শান্ত সমাহিত করতে চেয়েছি, অবারিত আকাংখায়।
পেতে চেয়েছি গভীর এক নদী সাগর অতলকে
যেখানে সূর্য তার তাপ ও আলো বিদ্ধ করতে গিয়ে রিক্ত হয়েছে বা হয়েছিল।
আমি এক অজানা অজ্ঞাত বা দুর্জ্ঞেয়র উপর ঝান্ডা উড়াতে চেয়েছিলাম, সত্যিই তো আমি তা-ই চেয়েছিলাম!
সময়ের সীমিতি বা তার সীমাকে আমি চেয়েছিলাম তুচ্ছ বা তুচ্ছাতিতুচ্ছ ব্যবচ্ছেদে বিবর্ণ করতে।
আমি চেয়েছিলাম তোমাকে, তুমি নিজেকে চেয়েছিলে!
তারপর অমোঘ নিয়মে
নিজেকে সিক্ত করতে থাকি এই *আমি*!
এক সময় আমার বোঝাপরা হয়
আমি দুলতে থাকি
নিজেকে চিনতে থাকি, বুঝতে থাকি জানার আর কী আছে বাকি।
এবং তারপর
যা হবার তা-ই হল, যা ছিল স্বাভাবিক, বাস্তবিক
তারপরও আমি থেকে গেছি নি:সীমতায়!
কে আমি তবে, তবে তুমিই বা কে?
বুঝে নিও অক্লেশে হতে গিয়ে ক্লিশে!!!

No comments:

Post a Comment